আশীর্বাদ’ সিনেমার নায়িকা হিসেবে চূড়ান্ত হলেন মাহিয়া মাহি. সরে দাঁড়িয়েছেন অপু বিশ্বাস.

0
21

আশীর্বাদ’ সিনেমার নায়িকা হিসেবে চূড়ান্ত হলেন মাহিয়া মাহি। আর এই ছবিতে প্রথমবারের মতো জুটি বাঁধছেন রোশন-মাহি। বুধবার (১৯ আগস্ট) দিবাগত রাতে মাহির বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন ছবির প্রযোজক জেনিফার ফেরদৌস।

২০১৯-২০২০ অর্থবছরে সরকারি অনুদানে পূর্ণদৈর্ঘ্য ১৬টি চলচ্চিত্রকে অনুদান দেয়া হয়েছে। এগুলোর মধ্যে অন্যতম ‘আশীর্বাদ’। এর প্রযোজক ও কাহিনিকার জেনিফার ফেরদৌস। এটি পরিচালনা করবেন জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কারজয়ী নির্মাতা মোস্তাফিজুর রহমান মানিক।

প্রযোজক জেনিফার বলেন, সরকারি অনুদান পাওয়ার পর থেকেই আশীর্বাদ ছবির প্রধান নারী চরিত্র সুবর্ণার জন্য নায়িকা খুঁজছিলাম। অবশেষে মাহিয়া মাহিকে আমরা চুক্তিবদ্ধ করেছি। এখন পর্যন্ত নায়ক ও নায়িকা চূড়ান্ত করা হয়েছে, বাকি অভিনয়শিল্পীদের নাম খুব শিগগিরই ঘোষণা করা হবে  বলে জানা গেছে।

মাহি জানান, মুক্তিযুদ্ধভিত্তিক এই ছবির সুবর্ণা চরিত্রটি ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের একজন ছাত্রীর চরিত্র। মুক্তিযুদ্ধের আগের উত্তাল রাজনীতি এবং মুক্তিযুদ্ধের পটভূমি নিয়ে ছবিটি নির্মাণ করা হচ্ছে। প্রধান চরিত্রে থাকতে পেরে তিনি উচ্ছ্বসিত।

এর আগে গত রবিবার (১৫ আগস্ট) এ ছবির জন্য অপু বিশ্বাসকে চূড়ান্ত করা হয়। তার সঙ্গে আনুষ্ঠানিক চুক্তিও হয়। কিন্তু শেষ পর্যন্ত এ ছবিতে অপুকে নেয়া হচ্ছে না বলেও জানানো হয়েছে। কারণ হিসেবে প্রযোজক জে‌নিফার বলেন, অপু বিশ্বাসকে এ ছবির জন্য চুক্তিবদ্ধ করা হলেও অপেশাদারিত্ব কারণে তাকে বাদ দেয়া হয়েছে। তাঁকে নিষেধ করা হয়েছিল এখনই এই ছবির বিষয়টি না জানাতে, কিন্তু তিনি ফেসবুকে সেটা সবাইকে জানিয়ে দেন

তবে এর আগে অপু দাবি করেন, তিনি বাদ পড়েননি। নিজেই ছবিটি থেকে সরে দাঁড়িয়েছেন। অপু বলেন, আমি নি‌জেই ব্যক্তিগত কারণে ছ‌বি‌টি ছে‌ড়ে দি‌য়েছি। আমা‌কে ছবিটিতে অভিনয় করার বিপরীতে কিছু শর্ত দেয়া হয়েছে, যা ক্যা‌রিয়া‌রের এই সম‌য়ে এ‌সে মানা সম্ভব নয়। এটা আমার কাছে একজন অভিনেত্রী হিসেবে অপমানের মনে হয়েছে। তাই প্র‌যোজক‌ ও পরিচালকের সঙ্গে শান্তিপূর্ণ আলোচনার মাধ্যমেই জানিয়ে দিয়েছি ছবিটি আমার পক্ষে করা সম্ভব নয়। 

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here